শহীদ আফ্রিদির সঙ্গে গৌতম গম্ভীরের লড়াইটা অনেক পুরনো। আগে সেটা ছিল মাঠে, খেলোয়াড়ি জীবন শেষে সেই লড়াই চলে এসেছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। দিনের পর দিন একে অপরের বিরুদ্ধে বিষোদগার গড়ে তুলেছেন তারা। সর্বশেষ আগুনে লড়াইয়ের ইস্যু সেই কাশ্মীর।

শহীদ আফ্রিদি করোনার এই সংকটময় মুহূর্তে পাকিস্তানে ত্রাণ কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছেন। যার অংশ হিসেবে তিনি গিয়েছিলেন পাকিস্তান অধ্যুষিত আজাদ কাশ্মীরে। সেখানেই ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করে ফের আলোচনায় আসেন আফ্রিদি। পাকিস্তানের সাবেক অলরাউন্ডার বলেন, ‘বিশ্ব এখন প্রাণঘাতী ভাইরাসে আক্রান্ত। তবে মোদি মনপ্রাণে এর চেয়েও বিপদজনক।’

আফ্রিদির সেই কথার ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ার পর খেপেছেন গৌতম গম্ভীর। ভারতের সাবেক ওপেনার ও বর্তমান ক্ষমতাশীন দল বিজেপির সাংসদ রীতিমত আগ্রাসী হয়ে উঠেছেন জবাবে। তিনি আফ্রিদিসহ পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ও বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক ইমরান খানকেও ‘জোকার’ বলতে ছাড়েননি।

এখানে শেষ হলে কথা ছিল। কাশ্মীর ইস্যু নিয়ে বলতে গিয়ে বাংলাদেশকেও টেনে আনেন গম্ভীর। আফ্রিদিদের মনে করিয়ে দেয়ার চেষ্টা করেন, ১৯৭১ সালে বাংলাদেশ কিভাবে বিচ্ছিন্ন হয়ে গিয়েছিল পাকিস্তান থেকে।

গম্ভীর তার টুইটারে লিখেছেন, ‘১৬ বছরের বালক আফ্রিদি বলছে, পাকিস্তানের ৭ লাখ সামরিক বাহিনীর পাশে ২০ কোটি জনগণ আছে। তারপরও ৭০ বছর ধরে কাশ্মীর ভিক্ষা চেয়ে যাচ্ছে। আফ্রিদি, ইমরান এবং বাউজার (পাকিস্তানের সেনাপ্রধান কামার জাভেদ বাউজা) মতো জোকাররা ভারত এবং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বিরুদ্ধে বিষ ছড়িয়ে পাকিস্তানের জনগণকে বোকা বানাচ্ছে। কেয়ামত পর্যন্ত কাশ্মীর পাবে না। বাংলাদেশের কথা মনে আছে?’

ব্রেকিংনিউজ/এএফকে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *